লাইফস্টাইল

Recipe: লুচি, রুটি, পরোটার সঙ্গে খাওয়ার জন্য দুর্দান্ত স্বাদের টক-ঝাল-মিষ্টি নিরামিষ তরকারি, শিখে নিন সহজ রেসিপি

প্রতিদিনের খাবারের তালিকায় সবজির তরকারি খুবই আবশ্যক! বিশেষ করে বাড়ন্ত বাচ্চা, বয়স্ক মানুষ এবং মহিলাদের জন্য প্রতিদিন গ্রিন ভেজিটেবলস একদম মাস্ট। সবজির মধ্যে থাকা ফাইবার, প্রোটিন, মিনারেল আমাদের শারীরিক স্বাস্থ্যের জন্য অত্যন্ত উপযোগী। পূর্বে টক-ঝাল-মিষ্টি পাঁচমিশালী তরকারি খাওয়ার চল ছিল বাঙালি বাড়িতে বাড়িতে। সাধারণত ভাত এবং ডালের সাথে পরিবেশন করা হতো এই পাঁচমিশালী তরকারি। রুটি বা পরোটার সাথে এর জুড়ি মেলা ভার। তবে বর্তমান যুগে কুটনো কাটার মানুষের অভাবে এই ধরনের তরকারি রান্না প্রায় বন্ধ হয়ে গেছে। তাই আজকে আমরা আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি টক-ঝাল-মিষ্টি পাঁচমিশালী তরকারি এক অনন্য স্বাদের রেসিপি।

উপকরণ এবং প্রণালী-

ডুমো ডুমো করে কাটা আলু
ছোট ছোট টুকরো করে কাটা গাজর
ছোট টুকরো করে কাটা ক্যাপসিকাম
ছোট টুকরো করে কাটা কুমড়ো
ছোট টুকরো করে কাটা লাউ
ছোট টুকরো করে কাটা ঝিঙে
ছোট টুকরো করে কাটা বিনস
১ টেবিল চামচ আদা বাটা
১ টেবিল চামচ টমেটো বাটা
গোটা জিরে ১ চা-চামচ, শুকনো লংকা দুটি, তেজপাতা
লঙ্কাগুঁড়ো স্বাদমতো
আমচুর পাউডার ১ টেবিল চামচ
সরষের তেল ১ কাপ
নুন মিষ্টি স্বাদ মত
কুচি করা ধনেপাতা

রন্ধন পদ্ধতি-

প্রথমে সবজি গুলোকে ভাল মত করে ধুয়ে সেগুলি ডুমো ডুমো করে কেটে নিতে হবে। এরপর কড়াইতে সরষের তেল ভালোমতো গরম করে তার মধ্যে দিতে হবে তেজপাতা, ফোড়ন ও শুকনো লঙ্কা। এরপর একে একে আদা বাটা,জিরা বাটা এবং সবজি গুলিকে একসাথে দিয়ে ভালো মত করে কষাতে হবে। এরপর গুঁড়ো মশলা দিয়ে ভালো মতো করে নেড়ে ঢাকনা দিয়ে কিছুক্ষণ বন্ধ করে রাখার পর ঢাকনা খুলে স্বাদমতো নুন চিনি ও আমচুর পাউডার দিয়ে ভালোমতো নাড়িয়ে নিয়ে তার মধ্যে প্রথম থেকে কুচি করে রাখা ধনেপাতা এবং লঙ্কার টুকরোগুলি দিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন টক-ঝাল-মিষ্টি পাঁচমিশালী তরকারি। লুচি পরোটার সাথে জলখাবারে কিংবা দুপুরের লাঞ্চের ভাতের সাথে এই তরকারি একদম জমে যাবে।

Tags

Related Articles

Close