বিনোদন

‘আমার সাফল্য সহ্য করতে পারছে না’, জ্যাকলিনের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা ঠুকলেন নোরা ফতেহি

এতদিন অভিনেত্রীদের মধ্যে অন্তর্দ্বন্দ্বের কথা আমরা অনেক শুনেছি, এবং বিভিন্ন অভিনেত্রীদের মধ্যে ক্যাটফাইটের কথাও শুনেছি। তবে এবার সেই ক্যাটফাইট পৌঁছে গেল আইনি কাঠগড়ায়। সম্প্রতি জানা গেছে বলিউডের অতি জনপ্রিয় তারকা নোরা ফাতেহি বলিউডের আরেক জনপ্রিয় অভিনেত্রী জ্যাকলিন ফার্নান্ডেজের বিরুদ্ধে এনেছেন মানহানির মামলা। যার জেড়ে বর্তমানে এই দুই তারকায় জড়িয়েছেন আইনি লড়াইয়ে।

নোরা এবং জ্যাকলিন দুজনের নামই বর্তমানে কনম্যান সুকেশ চন্দ্রশেখরের ২০০ কোটি টাকার আর্থিক তছরুপ মামলায় জড়িয়েছিল। আর তার কারণেই এই দুই তারকাকেই আইনি মামলার মধ্য দিয়ে যেতে হচ্ছে। এমনকি ইডির তরফ থেকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছিল এই দুই তারকাকে। নোরাকে প্রায় ৫০ টি প্রশ্ন করেন ইডি। এরপর ইডি তাকে ক্লিনচিট দেয় এবং মিরর গ্রুপের পক্ষ থেকে নোরাকে দেওয়া অর্থ চেয়ে নোটিশ পাঠানো হয়।

তবে শেষ পর্যন্ত নোরা এই মামলা থেকে রেহায় পান। কিন্তু তার মধ্যেই জ্যাকলিনের নামে আবার মামলা আনেন নোরা। কিন্তু কেন!জ্যাকলিনের বিরুদ্ধে মামলা আনার কারণ হিসেবে জানা গেছে, জ্যাকলিনের আইনজীবী বয়ানে জানিয়েছিলেন “সুকেশের থেকে যে সমস্ত তারকারা উপহার পেয়েছিলেন তার মধ্যে ছিল নোরার নাম। তবে অযথা জ্যাকলিনের নাম কেন জড়ানো হচ্ছে”। আর এমন কথা শুনেই নোরা ভীষণ রেগে যান এবং জ্যাকলিনের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করেন।

এই বিষয়ে নোরা জানিয়েছেন, তার সাথে সুকেশের থেকে “তিনি কোনো রকম উপহার নেননি, বরং সুকেশের স্ত্রী লীনা মরিয়া পল এর সাথে তার যোগাযোগ ছিল। জ্যাকলিন তাকে সম্পূর্ণ হেনস্তা করছেন এবং সাথে নিজের ক্যারিয়ারও নষ্ট করছেন। জ্যাকলিন এবং সুকেশ দুজনের অতীত এক এবং তাদের নোংড়ামির মধ্যে তাকে টানছেন জ্যাকলিন।

গত ১২ই ডিসেম্বর দিল্লির পাটিয়ালা হাউসে জ্যাকলিন এই মামলার হাজিরা দিয়েছিলেন। কিন্তু তার কাছে এখনো পর্যন্ত ইডির সম্পূর্ণ চার্জশিট না আসার ফলে বিচারপতি ২০ শে ডিসেম্বর পর্যন্ত পিছিয়ে দিয়েছেন এই মামলার শুনানির দিন, এমনটাই জানা গেছে জ্যাকলিনের আইনজীবীর কাছ থেকে।