×
Jannah Theme License is not validated, Go to the theme options page to validate the license, You need a single license for each domain name.

মদের গ্লাস দিয়ে বিনোদ খান্নার মুখ ফাটিয়ে দিয়েছিলেন অমিতাভ বচ্চন, কারন শুনলে চমকে যাবেন

অমিতাভ বচ্চন গ্লাস দিয়ে বিনোদ খান্নার মুখ ফাটিয়ে দেওয়াতে ১৬টা সেলাই পড়েছিল অভিনেতার

১৯৭০ এর দশকে বলিউড জগতে দাপুটে অভিনেতাদের মধ্যে অন্যতম ছিলেন বিনোদ খান্না(Vinod khanna) আর সাতের দশকে তারই যোগ্য প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন রূপলী জগতের অ্যাংরি ইয়াং ম্যান অমিতাভ বচ্চন (Amitabh Bachchan)। তবে কাজের জগতে যতই প্রতিদ্বন্দ্বিতা থাকুক ব্যক্তিগত জীবনে কিন্তু গভীর বন্ধুত্ব ছিল তাদের। তাদের গভীর বন্ধুত্বের গল্প অনেক সময়ই শোনা গিয়েছে তবে জানেন কি তাদের মধ্যে একবার রক্তারক্তি কান্ড ঘটেছিল! ৪৪ বছর আগেকার সেই ভুলের জন্য আজও অনুতপ্ত বিগবি!

একাধিক ছবিতে তারা একসাথে চুটিয়ে অভিনয় করেছেন, তাদের অনস্ক্রিন উপস্থিতি বারবার মুগ্ধ করেছে দর্শককুলকে। তবে জানলে অবাক হবেন এই দুই তারকা একবার রক্তারক্তি কান্ড ঘটিয়েছিলেন। নিজের সহকর্মীকে মেরে মুখ ফাটিয়ে দিয়েছিলেন অমিতাভ! যার জেরে ষোলটা মতো স্টিচ পরেছিল অভিনেতার মুখে।

সম্প্রতি কৌন বানেগা ক্রোড়পতিতে(KBC) পুরনো দিনের নানান প্রসঙ্গ উত্থাপন করে বিনোদ খান্নার স্মৃতিচারণ করেছিলেন অমিতাভ আর সেখানেই বিশেষ ঘটনাকে কেন্দ্র করে জানিয়েছেন তিনি আজও বিনোদ খান্নার কাছে লজ্জিত, আজও অনুশোচনায় ভোগেন তিনি।

আসলে বিষয়টি হল মুকাদ্দার কা সিকান্দার(Muqaddar ka sikdar) ছবির শুটিং এর সময় একটি দৃশ‍্যে বিনোদকে একটি গ্লাস ছুড়ে মারার কথা ছিল অমিতাভের। কিন্তু সেটা গিয়ে সোজা বিনোদের থুতনিতে লাগে। যার জেরে গুরুতর আহত হন বিনোদ খান্না। মুখে প্রায় ১৬ টা মতোন সেলাই করেই রক্ত বন্ধ করতে পেরেছিলেন চিকিৎসকরা। তবে এই ঘটনা মোটেও ইচ্ছাকৃতভাবে ভাবে নয়, অভিনয় করতে গিয়েই এই কান্ড ঘটেছিল।

কিন্তু তবুও আজও এই ঘটনার জন্য ক্ষমাপ্রার্থী বিগবি। বিগবি বলেন- ” আমার খুবই কাছের বন্ধু ছিলেন বিনোদ। আমরা ওকে হাসপাতালে নিয়ে গিয়েছিলাম ওর ক্ষতে সেলাই করেছিলেন চিকিৎসকরা। এরপরেই আমি ওকে বাড়িতে পৌঁছে দিই। ওই দুর্ঘটনার জন্য ওর স্ত্রীর কাছেও ক্ষমা চেয়েছিলাম।”