অফবিটআন্তর্জাতিকনিউজ

বাড়ির ছাদ ফুঁড়ে লক্ষী এলো ঘরে, রাতারাতি কোটি কোটি টাকার মালিক ভাগ্যবান জসুয়া

অগস্ট মাসে একদিন বাড়ির বাইরে কাজ করছিলেন তিনি।

লটারি জিতে রাতারাতি কোটিপতি হবার কথা প্রায়শই শোনা যায়। কিন্তু গ্রহাণু থেকে কোটিপতি হবার কথা শুনেছেন কখনো? আর এমন ঘটনা ঘটেছে ইন্দোনেশিয়াতে। আর এই ঘটনায় কোটিপতি হয়ে গেছেন জসুয়া হুটাগালুং। আর এই ঘটনার কথা শুনে তাজ্জব সকলেই। অগস্ট মাসে একদিন বাড়ির বাইরে কাজ করছিলেন তিনি। আর এমন সময় হঠাৎ করে বাড়ির ছাদ ফুঁড়ে একটি ২.১ কেজি ওজনের গ্রহাণুর একটি অংশ এসে পড়ে বাড়ির মধ্যে।

বাড়ির ছাদ ফুটো হয়ে যাবার ফলে তিনি চিন্তায় পড়েননি। বরং একরাতে হয়ে গেছেন কোটি টাকার মালিক। কারণ, এই গ্রহাণুর অংশটির দাম উঠেছে প্রায় ১০ লক্ষ পাউন্ড (৯.৮ কোটি টাকা)। এই গ্রহাণুটি পাওয়ার পর একজন পাথর সংগ্রাহকের কাছে তিনি এটি বিক্রি করে দিয়েছেন। তারপর সেই ব্যক্তি আরও আরেকজনের কাছে বিক্রি করেছেন। আপাতত অ্যারিজোনা স্টেট ইউনিভার্সিটিতে তরল নাইট্রোজেনে এটি সঞ্চয় করে রাখা আছে।

জসুয়া হুটাগালুং বলেন, “যখন এই ঘটনা ঘটে, তখন তীব্র একটা শব্দ হয়। ছাদ-সহ বাড়ির কিছু অংশ ভেঙে গিয়েছিল, আর এই শব্দে কেঁপে উঠেছে গোটা এলাকা।” তারপরেই এই ঘটনার ছবি তিনি ফেসবুকে শেয়ার করেন। আর মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয় ছবি।

আর একটি আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের খবর অনুসারে জানা যায়, এমন কিছু পদার্থ এই গ্রহাণুর অংশে রয়েছে যার বয়স ৪৫০ কোটি বছর। আর গ্রাম পিছু সেই ধাতব বস্তুর দাম প্রায় ৬৩ হাজার টাকা।

Tags

Related Articles

Close