অফবিট

৭০ বছর পর ভারতে দেখা মিলল উড়ন্ত উলি কাঠবেড়ালির, হইচই নেটদুনিয়ায়

সম্প্রতি একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সেখানে দেখতে পাওয়া যাচ্ছে উড়ন্ত কাঠবিড়ালির প্রজাতির কাঠবিড়ালিটিকে। যাকে ভারতে শেষ দেখা গিয়েছিল আজ থেকে ৭০ বছর আগে৷

করোনা সংক্রমণ থেকে দেশবাসীকে বাঁচাতে দেশজুড়ে শুরু হয় লকডাউন। আর এই লকডাউনের জেরে যান চলাচল বন্ধ থাকায় প্রচুর পরিমাণে দূষণ কমে যায়। আর মাঝেমধ্যেই বিভিন্ন জায়গায় দেখা গিয়েছে বিভিন্ন ধরনের পশু। কোথাও ময়ূর কোথাও হরিণ নানান সময় ভাইরাল হয়েছে বিভিন্ন পশু- পাখির ভিডিও। আর এবার দেখা মিলল আরেকটি বিরল প্রজাতির প্রাণী, উড়ন্ত কাঠবিড়ালির এক প্রজাতিকে ।

উড়ন্ত কাঠবিড়ালি নামটা শুনে কি রকম অবাক লাগছে! কাঠবিড়ালি সেতো গাছ বেয়ে ওঠে সে আবার উড়বে কিভাবে অনেকের মনেই আসছে এরকম প্রশ্ন। আবার অনেকেই বিশ্বাস করতে পারছে না কাঠবিড়ালি উড়তে পারে। কিন্তু সম্প্রতি একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সেখানে দেখতে পাওয়া যাচ্ছে উড়ন্ত কাঠবিড়ালির প্রজাতির কাঠবিড়ালিটিকে। যাকে ভারতে শেষ দেখা গিয়েছিল আজ থেকে ৭০ বছর আগে৷ এই কাঠবেড়ালির ছবিটি প্রকাশ্যে আসতেই হইচই পড়ে গিয়েছে নেটদুনিয়ায়।

এই বিরল প্রজাতির উড়ন্ত কাঠবিড়ালিকে দেখা গিয়েছে, উত্তরাখণ্ডের গঙ্গোত্রী জাতীয় উদ্যানে । জানা যাচ্ছে, এই বিরল প্রজাতির কাঠবিড়ালিটি ওড়ার সময় প্যারাসুট হিসাবে তার নখ ও পশম ব্যবহার করে। এই বিশেষ প্রজাতির কাঠবেড়ালি গ্লাইড করতে ত্বকের ফ্ল্যাপগুলি ব্যবহার করে এবং লেজটি স্টেবিলাইজার হিসাবে কাজ করে।

সূত্রের খবর, এই কাঠবিড়ালিটি উলের কাঠবিড়ালি হিসাবে চিহ্নিত, এই স্তন্যপায়ী প্রাণীটি ১৯২৪ সালের পর থেকে ভারতে দেখা যায়নি এবং এতদিন বিলুপ্ত হিসাবে বিবেচিত ছিল। এই উড়ন্ত উলি কাঠবিড়ালি একটি বিরল প্রজাতি হিসাবে তালিকাভুক্ত হয়েছে প্রকৃতি সংরক্ষণের জন্য আন্তর্জাতিক ইউনিয়নের। তবে, এই কাঠবিড়ালিটিকে ১৯৯৪ সালে নিউ ইয়র্ক টাইমসের একটি নিবন্ধ অনুসারে, ১৯৯৪ সালে পাকিস্তানে শেষ দেখা গিয়েছিল। আবার ২০২০ সালে কাঠবিড়ালিটিকে ভাইরাল হতে দেখা গেল নেট দুনিয়ায়। অনেকেই এই কাঠবিড়ালিকে নিয়ে নানান রকমের প্রশ্ন তুলেছে।

Tags

Related Articles

Close