অফবিট

কেন কুকুরা গাড়ি বা বাইকের পিছনে ধাওয়া করে? এর পিছনে রয়েছে আশ্চর্যজনক কারণ

আমরা অনেক সময় লক্ষ্য করে থাকি পথ কুকুরেরা সাধারণত কোন মোটরসাইকেল বা ল্যাম্পপোস্টে প্রস্রাব করে থাকে

পশুপ্রেমীরা পথকুকুরদের আমাদের সমাজের বন্ধু হিসাবে চিহ্নিত করে থাকে। বিশেষত এই সকল কুকুরেরা রাস্তাঘাটে পথচলতি মানুষদেরকে অনেক সমীহ করে চলে আর সেই কারণে পথচলতি মানুষেরাও এই ধরনের কুকুরদের খুব ভালোবেসে থাকেন। তবে আমাদের আশেপাশে রাস্তাঘাটে বা বাড়িতেই এই ধরনের পথ কুকুরেরা আশ্রয় নিলেও আমরা এদের অনেক স্বভাব চরিত্র সম্পর্কে এখনো অজ্ঞাত!

আমরা অনেক সময় লক্ষ্য করে থাকি পথ কুকুরেরা সাধারণত কোন মোটরসাইকেল বা ল্যাম্পপোস্টে প্রস্রাব করে থাকে। এছাড়াও রাত্রিবেলায় অনেকসময় কোন গাড়ি বা বাইক গেলে তার পেছনেও তারস্বরে ছুটতে থাকে এই পথ কুকুরেরা। তবে আমরা এই ধরনের স্বভাব চরিত্র লক্ষ্য করলেও এর পেছনে থাকা কারণ কখনোই খুঁজতে যাই না। আজ আমাদের এই প্রতিবেদনের মাধ্যমে আমরা আপনাদেরকে সেই কারণের হদীশ দিতে চলেছি।

সাধারণত পথ কুকুরেরা নিজেদের এলাকার ল্যাম্পপোস্ট কিংবা খুঁটিতে অথবা যানবাহনে প্রস্রাব করে থাকে। এছাড়াও সাধারণত কুকুরেরা যেসকল গাড়ি বা বাইকের পেছনে ধাওয়া করে সেগুলি তাদের নিজের অঞ্চলের হয় কেননা মনোবিজ্ঞান অনুযায়ী এই সকল কুকুরেরা অঞ্চল চিহ্নিত করে রাখে। তাই নিজের এলাকায় যদি অন্য কোন এলাকায় কিছু ঢুকে পড়ে সেক্ষেত্রে তারা প্রতিবাদী হয়ে ওঠে।

বিশেষত কুকুরেরা হলো শিকারি প্রাণী। তাই কোন বস্তুর পেছনে ধাওয়া করে নিজের শিকারীসত্তাকে মেলে ধরার চেষ্টা করে এই কুকুরেরা। আবার অনেক সময় পরিচিত কোন গাড়ি বা বাইকের পেছনে ছুটে তারা নিজের ভালবাসার জাহির করে থাকে। তবে নিজের এলাকায় অন্য এলাকার কুকুর ঢুকে পড়লে তাদের প্রতি হিংসাত্বক মনোভাব রাখে পথ কুকুরেরা। তবে সর্ব পরিশেষে বলা যায় যে, সমাজ বন্ধু হিসাবে এই সকল পথের সারমেয়গুলি আমাদের নিত্যদিনের জীবনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।

Related Articles