অফবিটনিউজ

ডিজিটাল ইন্ডিয়ায় ভাইরাল ‘ডিজিটাল ভিখারি’, গলায় ঝোলানো QR কোড, ‘PhonePe’-তে একসেপ্ট করছেন ভিক্ষা

আস্তে আস্তে আমরা ডিজিটাল যুগে পা দিচ্ছি, সাথে একটি ক্যাশলেস দুনিয়াও তৈরি হচ্ছে আমাদের। রিয়াল ক্যাশের চেয়ে অনলাইন ডিজিটাল ক্যাশ পেমেন্ট বেশি পছন্দ করছেন সকলকে। ডিজিটাল ইন্ডিয়ায় পিছিয়ে নেই কেউই। এমনকি ভিক্ষুকেরা ইউজ করছে অনলাইন পেমেন্ট। ঘটনাটি অবাক লাগলেও একদমই সত্যি। ঘটনাটি ঘটেছে বিহারের বেত্তিয়া রেলওয়ে স্টেশনে। সেখানে পাওয়া গেল এক “ডিজিটাল ভিক্ষুক”কে।

সম্প্রতি বিহারের বেত্তিয়া রেলস্টেশনে দেখা মিলল এক “ডিজিটাল ভিক্ষুকে”র। তার নাম রাজু পাটেল। ভিক্ষাভিত্তি করেই জীবন অতিবাহিত করে সে। তার গলায় ঝোলানো একটি কিউআর কোড। সেটিকে স্ক্যান করে আপনি আপনার ইচ্ছেমত টাকা দান করতে পারবেন তাঁকে আর সেই টাকা পৌঁছে যাবে সরাসরি তার ব্যাংক একাউন্টে। শুনতে অবাক লাগলেও ঘটনাটি একদম সত্যি। সেই রেলস্টেশনে গেলেই দেখা মিলবে তার।

এই বিষয়ে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে জানায়, অনেকেই খুচরো নেই বলে এড়িয়ে যান তাকে তাই সে এই নব পথ বেছে নিয়েছে। তাই কেউ আর এই অজুহাত দিয়ে এড়িয়ে যেতে পারবে না। সকলে নিজেদের ইচ্ছেমতো টাকা দান করতে পারবে। একই সাথে সে জানায় সে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ভক্ত। তাই প্রধান মন্ত্রীর ডিজিটাল ইন্ডিয়ার স্বপ্নে সেও সামিল হয়েছে। আর এই ডিজিটাল পেমেন্টের ব্যপারে সে প্রধানমন্ত্রীর থেকেই অনুপ্রাণিত হয়েছে।

সে আরও জানায়, তার স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার প্রধান শাখায় ব্যাংক অ্যাকাউন্ট রয়েছে। এমনকি সে প্যান কার্ডও তৈরি করেছে তার। এমন ডিজিটাল ভিক্ষুকের কথা শুনে অবাক হয়েছেন অনেকেই। আবার অনেকে তার এমন নব ভাবনাকে প্রশংসা করেছে। সব মিলিয়ে এক ডিজিটাল ইন্ডিয়ার দিকে এগচ্ছি আমরা তা বোঝা যাচ্ছে।