মাথায় টোপর, গলায় মালা দিয়ে কুকুরকে বিয়ে করলেন যুবক! ভাইরাল ছবি ঘিরে উত্তাল নেটদুনিয়া

মাথায় টোপর, গলায় ফুলের মালা, পাত্রের পরনে হলুদ টিশার্ট আর তার পাশেই লাল চেলিতে সেজে বসে রয়েছে কনে… কি ভাবছেন এতো চেনাচরিত দৃশ‍্য। না না বড়োসড়ো রকমের পার্থক্য রয়েছে কারণ এখানে কনে যে চারপেয়ে। হ্যাঁ সম্প্রতি এইরকমই ঘটনা ঘটেছে। চারপেয়ের সাথেই বিয়ের পিঁড়িতে বসেছেন এক যুবক। আর এই ছবি এখন ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়াজুড়ে।

জানা গেছে এই পাত্রের নাম দীপায়ন দাস আর এই ছবিটি পোস্ট করেছেন ওয়েডিং ফটোগ্রাফার বিজয় দে। ছবি সামনে আসতেই দর্শকদের মনে কৌতুহল ছেয়ে গেছে। পোষ‍্যরা সাধারণত সন্তানসম হয়ে থাকে কিন্তু সেখানে একটা চারপেয়ে সারমেয়র সাথে বিয়ে এই দেখেই রীতিমতোন ভুরু কুঁচকেছেন অনেকে। আবার একাংশ এই ছবি দেসে হাসির রোল তুলেছেন।

তবে বিষয়টি হাসির খোরাকে পরিণত হলেও এই ঘটনা বিরল নয়। আসলে শাস্ত্র অনুযায়ী মনে করা হয় কোনো জাতক জাতিকার মাঙ্গলিক দোষ থাকলে বিয়েতে বাধা বা সংসারে অশান্তি বিরাজ করে। জ্যোতিষশাস্ত্র মতে যাদের মাঙ্গলিক দোষ থাকে তাদের সে দোষ কাটানোর জন্য কোনো পশু, গাছ বা শিবের সঙ্গে বিয়ে দিতে হয় যা কুম্ভবিবাহ নামে পরিচিত।

সম্ভবত সেই বিশ্বাস থেকেই জ্যোতিষশাস্ত্রের বিধান অনুযায়ী দোষ কাটাতেই কুম্ভবিবাহ দেওয়া হয় ওই যুবককে। এরফলে এরপর সাধারণ বিবাহ করতে পারবেন ওই যুবক।

এর আগেও ঝাড়খণ্ডের একটি গ্রামে যুবতীর সঙ্গে কুকুরের বিয়ে দেওয়ার একটি ভিডিও সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল হয়েছিল সেক্ষেত্রেও মাঙ্গলিক দোষ কাটানোর জন্য এমন আয়োজন করা হয়েছিল। আসলে কথাই বলে “বিশ্বাসে মিলায় বস্তু তর্কে বহুদূর”তাই এমন অনেক ব্যক্তি রয়েছেন যারা জ্যোতিষ শাস্ত্রে বিশ্বাস রাখেন‌। একটা কুকুর যদি এই ভয় কাটাতে সাহায্য করে তাহলে ক্ষতি কি!