অফবিট

গিটার বাজিয়ে হিন্দি গান গেয়ে ঝড় তুললেন ভিখারি যুবতী! দেখুন ভিডিও, ভুলতে পারবেন না

সঙ্গীতা বাগ : আমাদের দেশ নানাবিধ প্রতিভায় পরিপূর্ণ। কেউ গান, কেউ নাচ, কেউ আবৃত্তি, কেউ অভিনয়…. এরকম হাজারো ট্যালেন্টের সমাবেশ আমাদের চারপাশে। এই বিভিন্ন প্রতিভা খুঁজে বের করার জন্য আজকাল অনেক ট্যালেন্ট সার্চ প্রতিযোগিতা বা অনেক রিয়ালিটি শো এর প্রচলন ঘটেছে। তারই জেরে প্রতিবছর মানুষের সামনে পরিচিত হয় কত প্রতিভাবান ব্যক্তি। তবে সবার কপালে তো এমন সুযোগ ঘটে না। তাই সোশ্যাল মিডিয়াকে কেন্দ্র করেও অনেকে ভাইরাল হয়ে তথাকথিত সেলেব হয়ে গেছে।

উদাহরণ স্বরূপ বলা যেতে পারে রানু মণ্ডলের নাম। রানাঘাট স্টেশনে তার ‘এক প্যায়ার কা নাগমা হ্যায়’ গান গাওয়ার ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ে মুহূর্তের মধ্যে। তারপরই তার মুম্বাই গমন, বিভিন্ন জায়গায় সম্মান সম্ভাষণ। তবে আজ রানু মণ্ডলের কথা থাক। আজ শুনে নেওয়া যাক সুদূর মুম্বাই এর বান্দ্রার এক ভিখারিনী মহিলার কথা। সময়, সুযোগ, পরিস্থিতি অনেক সময় মানুষের প্রতিভা প্রদর্শনের পথে বাধা হয়ে দাঁড়ায়। কিন্তু এই মহিলা রীতিমতো তার ভাগ্যকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিয়ে গান গেয়েছেন। জানা গিয়েছে, বান্দ্রা ফোর্টের সামনে কয়েকজন যুবক গিটার বাজিয়ে গান গাইছিলেন। এই মহিলা সেখানে উপস্থিত হয়ে যুবকগুলিকে অনুরোধ করে যাতে তাকেও একটি সুযোগ দেওয়া হয় গান গাওয়ার জন্য। ক্রমাগত বলতে থাকেন, “দাদা, আমাকে একটু গান গাইতে দাও না।” তাকে যথারীতি পাত্তা দেয় না। কিন্তু সেই মহিলা নাছোড়বান্দা।

মহিলার জেদের কাছে হার মেনে অবশেষে যুবকের দল তাকে গান গাইতে দেয়। অবিশ্বাস্য ভাবে গিটারে ‘বাতে দিল কি নজরো নে কি’ এর মতো আরো অনেক গান দক্ষতার সাথে পরিবেশন করতে থাকেন। স্বভাবতই রাস্তায় ভিড় জমে যায় তার গান শোনার জন্য এবং গানগুলির ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়াতে পোস্ট হয়ে যায়। মুহূর্তেই শেয়ারের বন্যা বয়ে যায় এবং ভাইরাল হয় বিষয়টি।

#বান্দ্রা ফোর্ট … মেয়েটির অপূর্ব সুন্দর গান.. অবহেলায় বেড়ে ওঠা প্রতিভা 💖💖💖

Gepostet von Mastika পাঠশালা am Freitag, 6. März 2020

Related Articles