অফবিটআন্তর্জাতিকনিউজ

শুক্র গ্রহে প্রাণের খোঁজ, টেলিস্কোপে ধরা পড়ল বিরল চিত্র, আশার আলোয় বিজ্ঞানীরা

মহাকাশ গ্রহ নক্ষত্র পুরোটাই রহস্যে ঘেরা। বিজ্ঞান কল্পবিজ্ঞানের গোলকধাঁধা নিয়ে রয়েছে প্রচুর জিজ্ঞাসা। জিজ্ঞাসা আসে পৃথিবীর বাইরে সত্যি কি কোন প্রাণী রয়েছে? সৌরজগৎ ব্রম্ভান্ডের খুঁজলে এমন গ্রহ কি পাওয়া যাবে না যেখানে প্রাণ আছে? বিজ্ঞানের কাজ গবেষনার করে পুরনো তত্ত্ব ভেঙেচুরে নতুন তত্ত্ব গঠন করা। সম্প্রতি বিজ্ঞানীরা এক নতুন তত্ত্ব তুলে ধরলেন যেখানে বলা হয়েছে শুক্রগ্রহে প্রানের সম্ভবনা রয়েছে।

শুক্র গ্রহ পৃথিবীর সূর্যের অনেক কাছে থাকে বলে এর তাপমাত্রা অনেক বেশি। এর পৃষ্ঠে ৪৩১ ডিগ্রী সেলসিয়াস এর মত তাপমাত্রায় কোন জীবের বেঁচে থাকার সম্ভবনা দেখেননি বিজ্ঞানীরা। এমনকি শুক্রে দিনের বেলায় যে তাপমাত্রা থাকে তাতে যে কোনো কঠিন পদার্থকে গলিয়ে দিতে সক্ষম আর সঙ্গে আছে কার্বন ডাই অক্সাইড। সব মিলিয়ে এতদিন পর্যন্ত জানা ছিল যে প্রাণ ধারনের জন্য প্রতিকূল শুক্র গ্রহ।

কিন্তু এবার কি বদলে যেতে চলেছে এই তত্ত্ব!! সম্প্রতি হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জ ও চিলির আটাকামা মরুভূমি থেকে শক্তিশালী টেলিস্কোপ ব্যবহার করে বিজ্ঞানীরা শুক্রের আপার ক্লউড ডেক খতিয়ে দেখেন। সেখানে ফসফিন নামক একটি দাহ্য গ্যাসের সন্ধান মিলেছে। যে গ্যাস পৃথিবীতে জৈব জীবনের অনুকূল পরিস্থিতি তৈরি করে। শুক্র গ্রহের মেঘপুঞ্জেও এই গ্যাস লক্ষ্য করেন বিজ্ঞানীরা।

তবে পরবর্তীতে শুক্রের চারিদিকে পুঞ্জিভূত মেঘে এসিডের উপস্থিতি থাকায় আস্তে আস্তে ফসফিনকে ধ্বংস করে দেয়।
এই গবেষণার প্রধান মুখ, কার্ডিফ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অফ ফিজিক্স এন্ড অ্যাস্ট্রোনমি গবেষক জানে গ্রেভিস বলেন যে ফসফরাসের উপস্থিতি মানে যে প্রাণ রয়েছে জোর দিয়ে বলা যায় না। প্রাণের জন্য আরো জরুরী অনেক পদার্থ দরকার যা নেই।

Tags

Related Articles

Close