নিউজরাজ্য

রেশনের গণ বন্টন বন্ধের হুঁশিয়ারি, দিনক্ষণ ঘোষণা রাজ্যের রেশন ডিলারদের

রেশন ডিলারদের দাবী প্রতি কুইন্টালে তারা কমিশন হিসাবে তারা পায় ৭০ টাকা। তাদের আরও দাবি, আইনত তাদের প্রতি কুইন্টাল ৮৭ টাকা পাওয়া উচিত।

রেশন দুর্নীতির অভিযোগ বহুদিন ধরেই চলে আসছে। লকডাউনের শুরু থেকেই রাজ্যের বেশ কিছু জায়গায় রেশন দুর্নীতির অভিযোগ সামনে এসেছে। এর ফলে বেশ কয়েকজন রেশন ডিলার অভিযুক্ত হয়েছেন, তাদের লাইসেন্স ও বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। কিন্তু এখনও রেশন মালিকেরা গণবন্টন ব্যবস্থার দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন। এদিকে রেশন মালিকেরা তাদের প্রাপ্য টাকা না পাওয়ার জন্য অভিযোগ করেছেন।

রেশন ডিলারদের দাবী প্রতি কুইন্টালে তারা কমিশন হিসাবে তারা পায় ৭০ টাকা। তাদের আরও দাবি, আইনত তাদের প্রতি কুইন্টাল ৮৭ টাকা পাওয়া উচিত। বাংলাতে এটা অন্য রাজ্যের তুলনায় অনেক কম। কিন্তু এপ্রিল মাস থেকে সেই কমিশন ও রেশন ডিলাররা আর পাচ্ছেন না। সরকার এই বিষয়টি দেখে নেবে বললেও সেই নিয়ে এখনও কিছু হয়নি। রেশন মালিকরা বার বার বলা সত্বেও কোনো ফল মেলেনি।

তবে এবার অল বেঙ্গল রেশন বাঁচাও যৌথ মঞ্চ’ নামে একটি সংগঠন রেশন ডিলারদের হয়ে সরকারের কাছে আবেদন জমা দিয়েছেন। আর এই পরিপ্রেক্ষিতে রেশন ডিলাররা সংগঠনের তরফ থেকে ১৪ সেপ্টেম্বর রাজ্যের প্রতিটি ব্লকে ব্লকে ডেপুটেশন জমা দেওয়া হবে। এতে কাজ না হলে ১২ অক্টোবর প্রতিটি রেশনের অফিসের সামনে রেশন মালিকরা ধর্না দেবে। তাতেও যদিও কোনো কাজ না হয়, তাহলে ডিসেম্বর মাস থেকে রাজ্যের রেশন ডিলাররা বৃহত্তর আন্দোলনে যাবে ও রেশন গণ বণ্টন বন্ধ করে দেবে। এই হুঁশিয়ারি দিয়েছেন।

রাজ্যে প্রায় ২০ হাজারের বেশি রেশন ডিলার রয়েছে। প্রায় ৭০০এম আর ডিস্ট্রিবিউটর রয়েছে। তাদের প্রত্যেককে কমিশন দিতে গেলে বিপুল পরিমাণ অর্থের প্রয়োজন রাজ্য সরকারের। আর এরকম বিনামূল্যে সবার জন্য রেশন দেবার প্রক্রিয়া আগে কোনোদিন হয়নি বলে রাজ্য সরকারের সমস্যা হচ্ছে বলে সূত্রের খবর। আর কেন্দ্রীয় সরকার ঠিকঠাক অর্থ দিচ্ছে না বলেও সমস্যা হচ্ছে বলে জানা গেছে।

Tags

Related Articles

Close