×

Indian Railways: নতুন নিয়মে ট্রেনের ভাড়ায় শীঘ্রই মিলতে পারে বিশেষ ছাড়, জানুন কীভাবে

২০২০ সালে করোনা সারা দেশে ছড়িয়ে পড়ার লকডাউন করা হয় সারা দেশে। সেই সাথে রাশ টান হয় রেল পরিষেবাতেও। তুলে দেওয়া ট্রেনের টিকিট কাটার নানান কোটা। এই কোটাগুলির মধ্যে বিশেষভাবে উল্লেখ্য হলো প্রবীণ নাগরিকদের জন্য টিকিট ছাড়ের কোটা। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার সাথে সাথে রেল পরিষেবা পুনরায় আগের জায়গায় ফিরে এলেও রেল আর প্রবীণ নাগরিকদের টিকিট ছাড়ের কোটাটি চালু করেনি। তবে ইদানিং শোনা যাচ্ছে রেল, বেশ কিছু শর্ত সাপেক্ষে প্রবীণ নাগরিকদের ছাড়ের কোটাটি আবার চালু করতে চলেছে।

সংবাদ সংস্থা পিটিআই সূত্রে জানা গেছে, অতি সম্প্রতি রেল এই বিষয় নিয়ে ভাবনা চিন্তা শুরু করেছে। রেল, করোনা পরিস্থিতির আগে টিকিট কাটার সময় পুরুষদের ক্ষেত্রে ৬০ বছর বয়সের পর থেকে এবং মহিলাদের ক্ষেত্রে ৫৮ বছর বয়সের পর থেকে ‘প্রবীণ নাগরিক’ হিসাবে ছাড় দিত। বেস টিকিট মূল্যের উপর পুরুষ যাত্রি ৪০ শতাংশ এবং মহিলা যাত্রীরা ৫০ শতাংশ ছাড় পেতেন।

রেলের বর্তমানে প্রবীণ নাগরিকদের টিকিট ছাড় ফেরানোর ব্যাপারে দু’টি শর্ত আরোপ করেছে। নতুন নিয়ম অনুযায়ী পুরুষ বা মহিলার টিকিটের ছাড় পেতে হলে বয়স নূন্যতম ৭০ বছর হতে হবে। তবে ছাড় কতটা মিলবে বা ছাড় কবে থেকে পাওয়া যাবে সে বিষয়ে রেল এখনো কিছু জানায় নি। আর দ্বিতীয় শর্তের ব্যাপারে যা জানা গেছে তা হলো, টিকিটের ছাড় শুধু মাত্র স্লিপার শ্রেণিতেই মিলবে। এবারে হয়তো আগের মতো বাতানুকূল বগিতে কোনও ছাড় মিলবে না। তবে রেল সূত্রে এও জানা গিয়েছে যে, ছাড় নতুন করে চালুর ব্যাপারে শুধুমাত্র ভাবনাচিন্তা চলছে, কোনও কিছুই এখনও পর্যন্ত চূড়ান্ত হয়নি।

আগে বিভিন্ন ছাড় মিলিয়ে রেল বছরে প্রায় দু’হাজার কোটি টাকা ভর্তুকি দিত যার মধ্যে ৮০ শতাংশই ছিল প্রবীণ নাগিরিকদের জন্য ছাড়। রেলের মতে নতুন শর্তে আগের তুলনায় ৭০ শতাংশ প্রবীণ নাগরিক টিকিট ছাড়ের সুবিধা পাবেন। আর এই ভর্তুকি তোলার জন্যও রেলে সব ট্রেনে ‘প্রিমিয়াম তৎকাল’ চালু করতে পারে যা এখন ৮০টির মতো ট্রেনে উপলব্ধ।

Related Articles