দেশনিউজ

ওপরে পা, নিচে মাথা ঝুলিয়ে ১১১ টি তীর নিক্ষেপ করে বিশ্ব রেকর্ড গড়ল ৫ বছরের কন্যা

মাথা নিচের দিক করে ঝুলে মাত্র ১৩ মিনিটে ১১১ টি তীর নিক্ষেপ করে অনন্য কৃতিত্বের অধিকারী হয়েছেন এই বাচ্চাটি।

প্রতিভার বোধহয় কোনো বয়স হয়না, কিছু খুদেদের মধ্যে এমন অসাধারন গুন লুকিয়ে থাকে যা প্রাপ্তবয়স্করাও পারবে না। কিছু মানুষ স্বয়ং ঈশ্বর প্রদত্ত হয়, প্রতিভা নিয়েই যেন জন্ম তাদের। এ যেন সত্যিই বিস্ময়কর! সম্প্রতি বছর পাঁচেকের এক খুদে যে অসাধ্য সাধন করেছেন তা দেখলে আশ্চর্য হয়ে যেতে হয়। মাথা নিচের দিক করে ঝুলে মাত্র ১৩ মিনিটে ১১১ টির তীর নিক্ষেপ করে অনন্য কৃতিত্বের অধিকারী হয়েছেন এই বাচ্চাটি। ভারতেই এমন এক বিস্ময়কর বালিকার খোঁজ মিলেছে। তার এই অনন্য কৃতিত্বের জন্য বিশ্ব রেকর্ডের নাম তুলেছে সে।

সঞ্জনা খুব কম সময়ের ব্যবধানে ১০০ টির বেশী তীর নিক্ষেপ করে হিউম্যান আল্টিমেট ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে নিজের নাম অন্তর্ভুক্ত করে ফেলেছেন তার এই কৃতিত্ব সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ পেতেই ভাইরাল হয়েছে।

সঞ্জনার প্রশিক্ষক শিহান হুসেইনি জানিয়েছেন মাত্র পাঁচ বছর বয়সে ১৩ মিনিটে ১১১ টি তীর ছোড়ার কৃতিত্ব এখনো পর্যন্ত কারও নেই তাও আবার উল্টোদিকে ঝুলে। এখন তাদের লক্ষ্য সঞ্জনার এই কৃতিত্ব গিনিস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডেও স্বীকৃতি পাওয়া।

গত ১৫ ই আগস্ট একটি অনুষ্ঠানে সঞ্জনা এই রেকর্ড তৈরি করেছে তার এই কৃতিত্বে গর্বিত ভারতবাসী। সঞ্জনা একদিন দেশের মুখ উজ্জ্বল করবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন সকলে। তার বাবার স্বপ্ন একদিন তাদের মেয়ে দেশের হয়ে অলিম্পিকে প্রতিনিধিত্ব করবে। প্রত্যেক স্বাধীনতা দিবসে রেকর্ড গড়ে ভারতকে সম্মান এনে দেবে। এছাড়াও ২০৩২ সালের অলিম্পিকে অংশগ্রহণ জন্য প্রস্তুতি নিয়ে দেশের জন্য সোনা নিয়ে আসবে। সঞ্জনার এই ভিডিও ভাইরাল হতেই প্রত্যেক মানুষ শুভকামনা জানিয়ে আশীর্বাদ করেছেন যাতে এই স্বপ্ন সফল হয়।

Tags

Related Articles

Close