আন্তর্জাতিকনিউজ

মাত্র ১০ বছর বয়সে বাবা হল এই কিশোর! বিজ্ঞান বলছে অন্য রহস্য

ভালোবাসার কোনো বয়স থাকেনা কিন্তু তা বলে কি বয়সের ভিত্তিতে কোনো সীমাবদ্ধতা থাকবে না? শিশুদের কাম্য আচরন কি প্রাপ্তবয়স্কের মতো হওয়া উচিত? যে বয়সে মানুষের মানসিক বুদ্ধি পরিপক্ক হয় না সেখানে এইসব কিছু ছাপিয়ে যৌনসম্পর্কে লিপ্ত হয়ে মাত্র 13 বছর বয়সে গর্ভবতী হয়েছিলেন রাশিয়ার এক মেয়ে দারিয়া ।

সম্প্রতি সে এক ফুটফুটে কন্যা সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। দারিয়া নিজেই ইনস্টাগ্রামে তার মা হবার খবর জানিয়েছেন। এছাড়াও বলেন যে, বর্তমানে তার বয়স 14 বছর, এত কম বয়সে মা হওয়ায় তার উপর অনেক ধকল গেছে তাই ডাক্তাররা তাকে সম্পূর্ণ বিশ্রামে থাকতে বলেছেন। মা হওয়ার পরেই এক চাঞ্চল্যকর দাবি করে বসলেন তিনি। তিনি জানিয়েছেন তার শিশুর বাবা ইভান, যার বয়স 11 বছর। কিন্তু এও কী করে সম্ভব কারণ চিকিৎসকরা জানাচ্ছেন একটি 10 বছরের ছেলের বিজ্ঞানসম্মতভাবে বাবা হওয়া সম্ভব নয়।

যদিও দারিয়া একের পর এক অসংলগ্ন দাবি করে চলেছেন কখনো বলছেন ইভানের বাবার ধর্ষনে সে গর্ভবতী হয়ে পড়েছিল আবার কখনো বলছেন তার বাড়ির সামনে একটি 16 বছর বয়সের ছেলে তাকে ধর্ষন করেছিল। কিন্তু পরমুহুর্তেই দাবি করেছেন তার বয়ফ্রেন্ড ইভানই বাচ্চার বাবা।

কোনটা সত্যি কোনটা মিথ্যে এই তদন্ত করতে নামতে হয়েছে পুলিশকে। পুলিশ জানিয়েছে ওই সদ্যজাত সন্তানের ডিএন এর পরীক্ষা হলেই সত্যিটা সামনে আসবে। রাশিয়ার বাসিন্দা এই দুই ছেলেমেয়েকে নিয়ে এখন বিতর্ক তুঙ্গে গোটা দেশেই। প্রসঙ্গত রাশিয়া নিয়ম অনুযায়ী 16 বছর বয়স হলে তবেই সে অভিভাবকত্ব লাভ করে। এখন দারিয়ার বয়স 14 বছর আর ইভানের বয়স 11। ততদিন বাচ্চাটির দ্বায়িত্ব পালন কে করবেন!! জানেন না কেউ।

Tags

Related Articles

Close