নিউজ বিনোদন ভাইরাল ভিডিও অর্থনীতি লাইফস্টাইল অফবিট খেলা রাজনীতি

করোনা মোকাবিলায় ইজরায়েলের পাশে ভারত! মোদীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ নেতানিয়াহু

দেবপ্রিয়া সরকার : গোটা বিশ্ব এখন করোনার কবলে। চীন ও ইতালি পর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র বর্তমানে মৃত্যুপুরীতে পরিণত হচ্ছে। সারা বিশ্বজুড়ে ১৫ লক্ষের বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছে এবং মৃতের সংখ্যা ৯০,৯৩৮। ভারতের রেহাই পায়নি করোনার কবল থেকে। তবে ভারত করোনা

Published By: Sangbad Safar Desk | Updated:

দেবপ্রিয়া সরকার : গোটা বিশ্ব এখন করোনার কবলে। চীন ও ইতালি পর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র বর্তমানে মৃত্যুপুরীতে পরিণত হচ্ছে। সারা বিশ্বজুড়ে ১৫ লক্ষের বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছে এবং মৃতের সংখ্যা ৯০,৯৩৮। ভারতের রেহাই পায়নি করোনার কবল থেকে। তবে ভারত করোনা সংক্রমণ অনেকটাই সামাল দিতে সক্ষম হয়েছে ম্যালেরিয়ার প্রতিষেধক ব্যবহারে। এদেশে করোনায় চিকিৎসায় ব্যবহার করা হচ্ছে ম্যালেরিয়ার প্রতিষেধক হাইড্রক্সিক্লোরোক্যুইন। আর এতেই মিলেছে সুফল। এই খবর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কানে যেতেই তিনি ভারতীয় সরকারকে এই ওষুধ রপ্তানি জন্য আবেদন করেছিলেন। যথারীতি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ট্রাম্পের আবেদনে সাড়া দিয়েছেন এবং এদেশ থেকে ওষুধ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পাঠিয়েছেন। মোদির এই সাহায্যে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প টুইট করে মোদিকে কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন।

আপনার জন্য নির্বাচিত

সম্প্রতি জানা গিয়েছে এবার ভারত দাঁড়ালো করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত অপর এক দেশ ইজরায়েলের পাশে। সম্প্রতি সে দেশেও পাঠানো হলো হাইড্রোক্সিক্লোরোক্যুইন। মোদির এরূপ সহায়তায় মোদিকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানিয়েছেন ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু। ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রী নিজের অফিশিয়াল টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে টুইট করে লিখেছেন, “ইজরায়েলে ক্লোরোক্যুইন পাঠানোর জন্যে আমার প্রিয় বন্ধু এবং ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ধন্যবাদ জানাই। ইজরায়েলের সমস্ত নাগরিকের পক্ষ থেকে আপনাকে ধন্যবাদ”। সারা বিশ্বে যত পরিমাণ হাইড্রোক্সিক্লোরোক্যুইন তৈরি হয় তার ৭০% উৎপাদন হয় ভারতে। তাই ভারত করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত সমস্ত দেশে এই ওষুধ রপ্তানি করবে বলে জানিয়েছে।

গোটা বিশ্ব জুড়ে যতজন মারা গিয়েছে তার মধ্যে ইতালিতে সবচেয়ে বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। সেখানে মোট ১৮,২৭৯ জন মারা গেছে। এরপরের স্থানে রয়েছে স্পেন, সেখানে মারা গেছে ১৫,২৩৮ জন। আমেরিকাতেও করোনা সংক্রমণ ঘটেছে মারাত্মক ভাবে। সেই দেশে এখনও পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ১৪,৮৩০ জনের। ফ্রান্সে মৃতের সংখ্যা। বর্তমানে ভারতে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত হয়েছে ৬৪১২ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৩৩ জনের।