দেশনিউজ

আজকেই শেষ, লকডাউনে ঝকঝকে আকাশে উদয় হবে ‘সুপার মুন’

করোনা আতঙ্কের মধ্যে পৃথিবী বুকে চাঁদ দেখাবে তার রহস্যকথা।মায়াময় হয়ে উঠতে চলেছে চাদ। করোনার দাপটের মধ্যেই মহাজাগতিক ঘটনার সাক্ষী থাকবে পৃথিবী। পৃথিবীর চারদিকে উপবৃত্তাকার কক্ষপথে ঘুরে চলেছে চাদ। সেই চাঁদ যখন পৃথিবীর সবচেয়ে নিকটবর্তী এসে পৌঁছায় তখন পৃথিবী থেকে চাঁদ কে বৃহত্তম দেখায়। একেই সুপারমুন বলে।

7 ই মে বৃহস্পতিবার এই বছর চতুর্থ চূড়ান্ত সুপারমুন, super flower moon দেখা যাবে। গত মাসেই চাঁদের অন্য এক রূপ সুপার পিঙ্ক মুন দেখেছিল বিশ্ব বাসি। এই সুপারমুনের’ এবার নামকরণ করা হয়েছে সুপার ফ্লাওয়ার মুন। এটি পৃথিবী থেকে তিন লক্ষ 61 হাজার 184 কিলোমিটার দূরে থাকবে,যেখানে চাঁদ ও পৃথিবীর মধ্যে গড় দূরত্ব তিন লক্ষ 84 হাজার চারশো কিলোমিটার। এই চাদটি শস্য রোপন ও দুধ চাদ নামেও পরিচিত। ফুল চাঁদ ঐতিহ্যগতভাবে বছরের পঞ্চম পূর্ণিমা হলেও এই বছর এটি একটি সুপারমুনের সাথে মিলে যায়।

প্রসঙ্গত সময়ের হিসেবে পশ্চিমী দেশগুলির বিভিন্ন জায়গায় মে মাসের পূর্ণিমায় খুব সুন্দর ফুল ফোটে। পৃথিবীর উত্তর গোলার্ধের এই মোহময় দৃশ্য চাঁদনী রাতে দেখতে বেশ সুন্দর লাগে আর সেই থেকেই এই পূর্ণিমার নাম পেয়েছে ফ্লাওয়ার মুন।

সূত্রের খবর বৃহস্পতিবার ভারতীয় সময় বিকেল 4 টে 15তে দেখা যাবে সুপারমুন। পৃথিবী থেকে সূর্যের দ্বারা পুরোপুরি আলোকিত হবে এটি।জ্যোতির্বিজ্ঞানীদের মতে বৃহস্পতিবার 99% আলোকিত অবস্থায় এই পূর্ণ চাঁদ দেখা যাবে ।পরবর্তী সুপারমুনটি অর্থাত সুপার পিঙ্ক মুনটি আবার দেখা যাবে 27 এপ্রিল 2021 সালে আর তার পরে দেখা যাবে 26 মে 2021 সালে। পরের বছর কেবলমাত্র দুটির সুপারম্যান দেখা যাবে বলে জানিয়েছেন জ্যোতির্বিজ্ঞানীরা।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Close