×

Saregamapa: কিশোর কুমারের ‘Super Hit’ গানে মঞ্চ মাতালো বাংলার রকস্টার স্নিগ্ধজিৎ, হিমেশ থেকে বাপ্পিদা সবাই বলল ‘ফাটাফাটি’

চলতি সিজনের সারেগামাপার হিন্দি ভার্সনে রয়েছে এক ঝাঁক বাঙালি তরুণ-তরুণী। রীতিমতো বাংলার জয়জয়কার সেখানে। একদিকে যেমন নিত্য নতুন বাউল গান দিয়ে জাতীয় মঞ্চ কাঁপাচ্ছেন অনন্যা চক্রবর্তী অন্যদিকে আবার উত্তরবঙ্গের বুনিয়াদপুর এর ছেলে স্নিগ্ধজিৎ ভৌমিক গুগলি হাঁকাচ্ছেন একের পর এক! সব মিলিয়ে একেবারে জমজমাট হয়ে উঠেছে এইবারে সারেগামাপার সিজেন।

গত সপ্তাহে সারেগামাপা এ আশির দশকের স্মরণে বিশেষ এপিসোড এর আয়োজন করা হয়। যাতে বিশেষ অতিথি হিসেবে এসেছিলেন বিখ্যাত বাঙালি পপস্টার বাপ্পি লাহিড়ী। আর এই দিনেই কিশোর কুমারের গান গেয়ে রীতিমতো সকলকে বোল্ড আউট করে দিলেন স্নিগ্ধজিৎ। এদিন মঞ্চে তিনি বাপ্পি লাহিড়ীর কম্পোজ করা দুটি গানের মেলোডি একসঙ্গে পারফর্ম করেছিলেন। যার মধ্যে একটি হলো “শারাবি” ছবির “দে দে পেয়ার দে” এবং অন্যটি হলো “লহু কে দো রং” ছবির “চাহিয়ে থোরা পেয়ার।”

তিনি যে একজন জাত গায়ক তা নিজের পারফরম্যান্সের মাধ্যমে সকলকে বুঝিয়ে দিল স্নিগ্ধজিত। যুরি মেম্বার দের কাছ থেকে 100% নাম্বার পাওয়ার পাশাপাশি প্রত্যেক বিচারক ও প্রতিযোগীদের কাছ থেকে মিলল স্ট্যান্ডিং ওভেশন। বাপ্পি দার পাশাপাশি হিমেশ, বিশাল ও শঙ্কররাও বাংলার এই রকস্টার লকে প্রশংসায় ভরিয়ে দিলেন। এক কথায় নিজের পারফরমেন্স দিয়ে মঞ্চে আগুন লাগিয়ে দিয়েছিলেন বাঙালি এই গায়ক।

অডিশন রাউন্ড থেকেই দর্শক থেকে বিচারক সকলের মনের মনিকোঠায় জুড়েছিলেন স্নিগ্ধজিৎ। তবে হেটার্সদের কন্ট্রোভার্সি থেকে বাদ যাননি এই প্রতিযোগী। তাদের কথামত স্নিগ্ধজিৎ বাংলা সারেগামাপার ফাইনালিস্ট হওয়ার দরুন তাকে বাড়তি সুবিধা দেওয়া হচ্ছে সারেগামাপার মঞ্চে। তবে হেটার্সদের এমন ন্যক্কারজনক অভিযোগের জবাবে স্নিগ্ধজিৎ এর সাফ বার্তা, “আমাকে কোন রকম বাড়তি সুবিধা দেয়া হয়নি। সকলের মতো আমিও লাইনে দাঁড়িয়েছি। প্রথমে কলকাতায় অতঃপর মুম্বাইতে অডিশন দিয়েছি। তারপরে সেরা ষোলোতে আমার জায়গা হয়েছে। যারা আমার ওপর বিশ্বাস রেখেছেন তাদের বিশ্বাসের মর্যাদা আমি রেখেছি।”