বিনোদন

Dhulokona: ‘উড়ন্ত সিঁদুরে সমস্যা নেই, লিপস্টিকেই দোষ?’ ‘ধূলোকণা’ নিয়ে ট্রোলের মোক্ষম জবাব দিলেন তিতির

পূর্বে বহুবার স্টার জলসার মেগাসিরিয়াল ধূলোকণা(Dhulokona) বিভিন্ন কারণের জন্য ট্রোলড হয়েছিল! আর এইবার সবকিছুর বাঁধ ভাঙ্গলো ধারাবাহিক নির্মাতারা। ভাই-বোনের বিয়ে থেকে শুরু করে লিপস্টিক দিয়ে সিঁদুর দান এমন অদ্ভুত দৃশ্য দৃশ্যায়িত করে রীতিমতো চমকে দিল ভক্তকুলের মন। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছাড়িয়ে গিয়েছে ট্রোলের বন্যা।

সমুদ্রে ডুবে গিয়ে লালন(Lalon)বিস্মৃত হয়ে পড়ে কিন্তু এক চিকিৎসক কর্তৃক উদ্ধারকৃত হয় লালন(Lalon)। এমনসময় ফুলঝুরির(Fuljhuri) জানা ছিল না যে লালন(Lalon)বেঁচে আছে। প্রিয় স্বামীকে হারিয়ে বিধবা বেশ ধারণ করে সে। জনৈক চিকিৎসক লালনকে(Lalon) উদ্ধার করে নিজের বাড়িতে নিয়ে আসার পরেও ফুলঝুরিকে(Fuljhuri) কিছুতেই মনে করতে পারে না লালন আর এমন সময় নিজের মেয়ে তিতিরের(Titir)সাথে লালনের বিয়ে ঠিক করে চিকিৎসকের স্ত্রী।

তবে চিকিৎসক চেয়েছিলেন বিয়ের আসরে যেন লালনের সমস্ত স্মৃতি মনে পড়ে যায়। তবে এমনটা হয় না। আবছা আবছা মনে পড়লেও লাল টুকটুকে বেনারসি শাড়িতে ফুলঝুরিকে দেখেও লালন চিনতে পারে না। শেষে তিতিরের সিথিতে লিপস্টিক ব্যবহার করে সিঁদুর পরিয়ে দেয় লালন আর তাতেই ঘটে বিপত্তি! সিরিয়ালের বিয়ের দৃশ্যতে এই অতিনাটকীয়তা মোটেই পছন্দ হয় না দর্শকদের।

ধারাবাহিকের চিত্রনাট্যকার লীনা গঙ্গোপাধ্যায়(Leena Ganguly)এর উদ্দেশ্যে চলতে থাকে হাজারো ট্রল। তবে শেষপর্যন্ত থাকতে না পেরে সম্পূর্ণ বিষয়টি নিয়ে মুখ খোলেন সম্পূর্ণা মণ্ডল(Samparna Mandal) ওরফে অভিনেত্রী জানান, এর পূর্বেও সিঁথির সিঁদুর নায়িকার মাথায় উড়ে এসে পড়লে বিয়ে হয়েছে কিংবা কখনো হাতের শিরা কেটে রক্ত লাগিয়ে বিয়ে হয়েছে। সেসব নিয়ে দর্শকদের আপত্তি না থাকলে এই দৃশ্যে আপত্তি কোথায় সেই কথাই সমালোচকদের কাছে জানতে চেয়েছেন অভিনেত্রী!

Related Articles