বিনোদন

করিনার দ্বিতীয় সন্তানের নাম ঔরঙ্গজেব, না চেঙ্গিস খাঁ? চরম কটাক্ষ নেটিজেনদের

বলিউড ফ্লাশের ঝলক সবসময় তার দিকে ফোকাস্‌ড থাকে। সেই সইফপুত্র ছোট্ট সেলেব তৈমুর আলি খান রবিবার দাদা হলেন। রবিবার মুম্বইয়ের ব্রিচ ক্যান্ডি হাসপাতালে দ্বিতীয় পুত্রসন্তানের জন্ম দেন করিনা। উল্লেখ্য, সইফিনার প্রথম সন্তানের নামকরণ নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছিল। তাই দ্বিতীয় সন্তানের নামকরণ নিয়ে বাড়তি সতর্ক সইফ-করিনা দুজনেই।

অবশ্য নেট দুনিয়ার ট্রোলাররা এখন থেকেই সইফ-করিনার জীবনের অন্যতম স্পেশ্যাল সময়তেও ট্রোলের থাবা বসাচ্ছেন। করিনার পুত্র সন্তান জন্ম দেওয়ার খবর প্রকাশ্যে আসার পরই তার নাম কী রাখা হবে, তা নিয়ে মাথাব্যাথার অন্ত নেই ট্রোলারদের। কেউ বলছে স্বৈরাচারী মোঙ্গল শাসক চেঙ্গিজ খাঁর নাম, আবার কেউ বলছে মোঘল শাসক ঔরঙ্গজেব-এর নাম। সেই নিয়েই এদিন দিনভর ট্যুইটার ইন্ডিয়াতে ট্রেন্ড হয়ে উঠল ঔরঙ্গজেব, বাবর, মোঙ্গল খাঁ প্রভৃতি নামগুলি।একজন ট্যুইটার ব্যবহারকারী জানিয়েছেন, “করিনা-সইফের ফের ছেলে হয়েছে, এবার ওঁরা ছেলেন নাম কী রাখবেন? ঔরঙ্গজেব, না খিজর খান!” সেই ট্যুইটের উত্তরে একজন জানান, “দাদার নাম যখন তৈমুর রেখেছে তো নতুন ভাই এর নাম ঔরঙ্গজেব রাখুক।”


 
প্রসঙ্গত, তৈমুরের নামকরণ নিয়ে নজিরবিহীন বিতর্কের মুখে পড়েছিলেন এই জুটি। তাই দ্বিতীয় দফায় আগেভাগেই সন্তানের নাম না ঠিক করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন সইফিনা। মাসখানেক আগে নেহা ধুপিয়ার সঙ্গে একান্ত আলাপচারিতায় করিনা জানিয়েছিলেন, তৈমুরের নাম ঘিরে যে বিতর্ক তৈরি হয়েছিল তা ভেবেই শিউরে উঠছেন তাঁরা। করিনা বলেছিলেন, “গতবার তৈমুরের নাম নিয়ে যে কাণ্ড ঘটেছিল! তাই এবার আমি আর সইফ দুজনেই বিশেষ কিছু ভাবিনি।”

উল্লেখ্য, তৈমুর নাম নিয়ে বিতর্ক তৈরি হওয়ায় তারকা দম্পতি বারেবারে জানিয়েছিলেন, তাঁরা সুলতানের নামানুযায়ী তৈমুর নাম রাখেননি। ‘তৈমুর’ শব্দের অর্থ হল ‘লোহা’ সেই হিসেবেই তাঁরা ছেলের নাম রেখেছিলেন তৈমুর আলি খান। নামটি পছন্দ করেছিলেন করিনাই। এবার হয়ত তৈমুরের ছোট ভাইয়ের নাম হিসাবে সইফ নিজের পছন্দের নাম ‘ফয়জ’ রাখতে পারেন। ‘ফয়জ’ শব্দের অর্থ বিজয়ী বা সফল। তবে তৈমুরের ভাইয়ের নামকরণ করতে সইফিনার ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত যাই হোক, এই নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ার ট্রোলারদের রাতের যে ঘুম উড়ে গেছে সেই বিষয়ে কোন সন্দেহ নেই।

Tags

Related Articles

Close