বিনোদনভাইরাল ভিডিও

মহেশ ভাটের বিরুদ্ধে এবার চুরির অভিযোগ, চরম সংকটে ‘সড়ক – ২’ সিনেমা

সুশান্তের মৃত্যুর পর থেকেই মহেশ ভাটের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ করেছে অভিনেতার অনুরাগীরা। এমনকি অভিনেতার ভক্তরা প্রতিজ্ঞা করেছিল মহেশ ভাট পরিচালিত সড়ক-২ বিশ্বের সবথেকে বেশি ডিজলাইক পাওয়া ট্রেলার করার জন্য সবরকম চেষ্টা করবে তারা। সেরকমই হয়েছে। ‘সড়ক-২’ ডিজলাইকের দিকে বিশ্বরেকর্ড করেছে। এবার এই ছবির গান নাকি চুরি করা হয়েছে, এমনটাই অভিযোগ করছে মিউজিক প্রোডিউসার শেজান সলিম ওরফে জো-জি।

এই মিউজিক প্রোডিউসার দাবি করেন, সড়ক-২ তে ‘ইশক কামাল’ বলে যে গান ব্যাবহার করা হয়েছে তা চুরি করেছে মহেশ ভাট। তিনি আরও বলেন, আজ থেকে এগারো বছর আগে এই গান তিনি কম্পোজিশন করেছিলেন। ২০১১ সালে এটি মুক্তি পেয়েছিল বলে তিনি জানান। শেজান সলিম এক ট্যুইট বার্তায় দুই গানের হুবহু মিলের কথা দাবি করেন।

প্রযোজক সংস্থা ফক্স স্টার স্টুডিওকে ট্যাগ করে জো-জি লেখেন, এই গানটা আমার প্রোডিউস করা এবং এটি ২০১১ সালে গানটি লঞ্চ হয়েছে। এই গানটা এখন আমরা নিয়ে কি করবো। আসুন আমরা আলোচনা করি। টুইটারে তিনি যে ভিডিও দুটি পোস্ট করেছেন সেখানে দুটি গানের দারুন মিল ধরা পড়েছে। শেজান সলিম তার বন্ধু জায়েদ খানের জন্য ‘রব্বা হো’ বলে একটি মিউজিক প্রোডিউস করেছিলেন। তিনি এই ভিডিওবার্তায় বলেছেন, আমি প্রথমে ভেবেছিলাম শুধু মেলোডিটা এক, তবে এতো দেখি মিউজিকও পুরো এক। এই দুটো কি একদম এক নয়? আপনারাই বলুন জনতা।

কঙ্গনা রানাওয়াত সুশান্ত মৃত্যুর প্রথম থেকেই বলিউডের একাধিক তাবড় তাবড় পরিচালক, অভিনেতা অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে নেপোটিজমের অভিযোগ তুলেন। মহেশ ভাটও এদের মধ্যে পড়ে। নেপোটিজম নিয়ে টুইটারে অনেক পোস্ট করতে দেখা গিয়েছিল কঙ্গনাকে। এই বিষয় নিয়ে কঙ্গনার সাথে বিতর্ক চলছিল মহেশ কন্যা পূজা ভাটের। সেই সময়ই পূজা ভাট একবার জানিয়েছিলেন যে ‘ইশক কামাল’ গানটি চন্ডিগড়ের একজন মিউজিক টিচার কম্পোজ করেছেন। তিনি আরও বলেছিলেন যে, ওই মিউজিক টিচার কোনরকম অ্যাপোয়েনমেন্ট না নিয়েই বিশেষ ফিল্মসের অফিসে হাজির হয়েছিলেন এবং গানটি শুনেই গানটিকে ছবিতে কাজে লাগানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন মহেশ ভাট।

Tags

Related Articles

Close